রাজধর্ম : বাজপেয়ির পরামর্শ কতটা রেখেছেন মোদি?

২০০২ সাল। ভয়াবহ সাম্প্রদায়িক সংঘর্ষে রক্তাক্ত ভারতের গুজরাট। দেশের প্রধানমন্ত্রী পদে অটলবিহারী বাজপেয়ি। আর গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী পদে তখন বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সে সময় মোদিক পাশে বসিয়ে এক সাংবাদ সম্মেলনে বাজপেয়ি বলেছিলেন— রাজধর্ম পালন করা দরকার।

অটলবিহারী বাজপেয়ির সেই বিখ্যাত ‘রাজধর্ম’ মন্তব্যের পর চলে গেছে এক যুগ। ঠিক ১২ বছর আগে ভারতের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ওই পরামর্শ দিয়েছিলেন বাজপেয়ি। মোদি সে পরামর্শ মেনে আদৌ কাজ করেছিলেন কি না, তা নিয়ে বিতর্ক রয়েছে। কিন্তু ১২ বছর আগে মোদিকে যে পরামর্শ দিয়েছিলেন বাজপেয়ি, তার মোদির জন্য আজও একই রকম প্রাসঙ্গিক।

অটলবিহারী বাজপেয়ির সেই মন্তব্য আর নরেন্দ্র মোদির মুখে সেই অস্বস্তির ছাপ ভারতীয় গণতন্ত্রের ইতিহাসে স্মরণীয় ছবিগুলোর অন্যতম। শুধু মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালীন নয়, প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরেও বার বার বাজপেয়ির সেই পরামর্শ ফিরে ফিরে এসেছে মোদির জীবনে। কট্টরবাদ সংক্রান্ত অভিযোগ যত বার উঠেছে মোদির বিরুদ্ধে, ততবারই গোটা দেশ বাজপেয়ির সেই পরামর্শ মনে করিয়ে দেয়ার চেষ্টা করেছে মোদিকে।

যে দলের নেতা হিসেবে প্রধানমন্ত্রী হয়েছিলেন বাজপেয়ি, সেই বিজেপি থেকেই প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। দেশের ৭২তম স্বাধীনতা দিবসে দেয়া ভাষণে মোদি দাবি করেন, তিনি বাজপেয়ির পথেই চলতে চান। জম্মু-কাশ্মীরের জন্য অটলবিহারী বাজপেয়ী যে স্লোগান তুলেছিলেন, সেই ‘জমহুরিয়ত-ইনসানিয়ত-কাশ্মীরিয়ত’-এর পথই অনুসরণ করবে তার সরকার।

যে বিষয়ে বাজপেয়ির পথ অনুসরণ করবেন বলে মোদি জানিয়েছিলন, নির্দিষ্ট করে সেই বিষয়ে মোদিকে কোনো পরামর্শ দেয়ার প্রয়োজন বাজপেয়ির হয়নি। কিন্তু বাজপেয়ি যে পরামর্শটি মোদিকে দিয়েছিলেন, সেটি কি মোদি অনুসরণ করার কোনো চেষ্টা করেছেন? প্রশ্নটা আজও রয়ে গিয়েছে।

বৃহস্পতিবারই বাজপেয়িকে দেখতে গিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন, অটলবিহারী বাজপেয়ি অন্য রকম নেতা ছিলেন। এখন যে রকম রাজনীতি হয়, বাজপেয়ি সে রকম রাজনীতি করতেন না।

নরেন্দ্র মোদির নাম না করলেও, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ইঙ্গিত যে সে দিকেই, তা নিয়ে রাজনৈতিক শিবিরের সংশয় নেই। আনন্দবাজার।



চেয়ারম্যান ও প্রধান সম্পাদক : মনির চৌধুরী, সম্পাদক: মো: মোফাজ্জল হোসেন, সহকারী সম্পাদক : মোঃ শফিকুল ইসলাম, ব্যবস্থাপনা পরিচালকঃ সৈয়দ ওমর ফারুক, নির্বাহী সম্পাদক: ঝরনা চৌধুরী।

সম্পাদকীয় কার্যালয়: ১২ পুরানাপল্টন,(এল মল্লিক কমপ্লেক্স ৬ষ্ট তলা)মতিঝিল, ঢাকা-১০০০।
ফোন বার্তা বিভাগ: ০২-৯৫৫৪২৩৭,০১৭৭৯-৫২৫৩৩২,বিজ্ঞাপন:০১৮৪০-৯২২৯০১
বিভাগীয় কার্যালয়ঃ যশোর (তিন খাম্বার মোড়) ধর্মতলা, যশোর। মোবাইল: ০১৭৫৯-৫০০০১৫
Email : news24mohona@gmail.com, editormsangbad@gmail.com
© 2016 allrights reserved to MohonaSangbad24.Com | Desing & Development BY PopularITLtd.Com, Server Manneged BY PopularServer.Com